You are here
Home > ক্রিকেট > লোয়ার-অর্ডারের ব্যাটিং দৃঢ়তায় প্রথম দিন টাইগারদের!

লোয়ার-অর্ডারের ব্যাটিং দৃঢ়তায় প্রথম দিন টাইগারদের!

লোয়ার-অর্ডারের ব্যাটিং দৃঢ়তায় প্রথম দিন টাইগারদের

প্রথম দিন শেষে ৮ উইকেট হারিয়ে ৩১৫ রান সংগ্রহ বাংলাদেশের। এখন দেখার বিষয় সফরকারী উইন্ডিজদের বিপক্ষে কতটা বড় স্কোর করতে পারে স্বাগতিকরা। গ্যাব্রিয়েলের ভয়ংকর বোলিংয়ে তছনছ হয়ে যায় টাইগারদের সাজানো ব্যাটিং। বড় রানের সম্ভাবনা থাকলেও এক সময় ২৫০ রান পার হওয়া নিয়েই শংকা জেঁকে বসেছিলো। কিন্তু না! লোয়ার-অর্ডারের ব্যাটিং দৃঢ়তায় প্রথমে আড়াইশ, পরে তিনশ’র বৈতরণীও অতিক্রম করল টাইগাররা।

এর কৃতিত্ব দিতে হবে মেহেদী হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম ও নাঈম হাসানকে। ধ্বংসস্তূপে দাঁড়িয়ে প্রথমে প্রতিরোধ গড়েন মিরাজ। পরে তার দেখানো পথে হাঁটলেন তাইজুল-নাঈম। এ ত্রয়ীর নৈপুণ্যে ৮ উইকেটে ৩১৫ রান তুলে প্রথম দিনটি নিজেদের করে নিয়েছে সাকিব বাহিনী। ৩২ রান নিয়ে অপরাজিত আছেন তাইজুল। ২৪ রান নিয়ে তার সঙ্গী নাঈম। ইতিমধ্যে ৫৬ রানের জুটি গড়ে ফেলেছেন তারা। দ্বিতীয় দিনে নতুন করে খেলা শুরু করবেন এ জুটি। আলোক স্বল্পতার কারণে নির্ধারিত ওভার শেষ হওয়ার আগেই সমাপ্তি টানেন আম্পায়ার। ৯০ ওভার খেলা হওয়ার কথা থাকলেও খেলা হয় ৮৮ ওভার।

দিনের প্রথম দুই সেশন বেশ সাফল্যের সঙ্গেই কাটায় বাংলাদেশ। তবে চট্টগ্রাম টেস্টের তৃতীয় সেশনে এসে শ্যানন ঝড়ে হঠাৎ ম্যাচের গতি পাল্টে যায়। মমিনুলের সেঞ্চুরিতে তিন উইকেটে ২১৬ রান নিয়ে বিরতিতে গিয়েছিল বাংলাদেশ। বিরতির ভেঙে ফেরার পর ১৯ রানের মধ্যে পতন হয় চার উইকেটের।  বৃহস্পতিবার সকালে চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন বাংলাদেশ অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। ইনিংসের প্রথম ওভারেই শূন্য রানে ফিরেন সৌম্য। এরপর দ্বিতীয় উইকেটে ইমরুল-মমিনুল শত রানের জুটি গড়েন। তবে প্রথম সেশনেই ৪৪ রান করে বিদায় নেন ইমরুল।

এরপর মিঠুনকে নিয়ে তৃতীয় উইকেটে ৪৮ ও সাকিবকে নিয়ে চতুর্থ উইকেটে ৬৯ রান যোগ করেন মমিনুল। এর মধ্যে টেস্ট ক্যারিয়ারে অষ্টম সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন তিনি। চতুর্থ উইকেটে মমিনুল-সাকিব জুটি অবিচ্ছিন্ন থেকে দ্বিতীয় সেশন শেষ করেন। তবে তৃতীয় সেশনে হঠাৎ গ্যাব্রিয়েল ঝড়ে ম্যাচের অবস্থা পাল্টে যায়। সেঞ্চুরিয়ান মমিনুল, মুশফিক, মাহমুদুল্লাহ ও সাকিবসহ পরপর চার উইকেট তুলে নেন তিনি। এতে হঠাৎ ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ চলে যায় ক্যারিবীয়দের হাতে। বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে মমিনুল ১২০ ও সাকিব ৩৪ রান করেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজ বোলারদের মধ্যে গ্যাব্রিয়েল ৪টি, ওয়ারিকান ২টি এবং বিশু ও রোচ ১টি করে উইকেট তুলে নেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

বাংলাদেশ – প্রথম ইনিংসঃ ৩১৫/৮, ৮৮ ওভার (ইমরুল ৪৪, সৌম্য ০, মমিনুল ১২০, মিথুন ২০, সাকিব ৩৪, মুশফিক ৪, মাহমুদুল্লাহ ৩, মিরাজ ২২, নাঈম ২৪*, তাইজুল ৩২*; রোচ ১/৫৫, গ্যাব্রিয়েল ৪/৬৯, ওয়ারিকান ২/৬২, বিশু ১/৬০)

ছবিঃ ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত

উপরে